For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

দেশজুড়ে ১২০টি আসন হারাতে চলেছে বিজেপি, বাংলায় প্রাপ্তি সর্বোচ্চ ৮

সমীক্ষার রিপোর্টেই তুলে ধরা হয়েছে, দেশজুড়ে ১২০টি আসন হারাতে চলেছে বিজেপি। এ রাজ্যে বিজেপির সর্বোচ্চ আসন প্রাপ্তির সম্ভাবনা মাত্র ৮। 
12:05 PM Apr 01, 2024 IST | Koushik Dey Sarkar
দেশজুড়ে ১২০টি আসন হারাতে চলেছে বিজেপি  বাংলায় প্রাপ্তি সর্বোচ্চ ৮
Courtesy - Google
Advertisement

কৌশিক দে সরকার: প্রধানমন্ত্রী লোকসভায় দাঁড়িয়ে বেশ বড় মুখ করেই বলেছেন, ‘আব কে বার ৪০০ পার’। লেজুড় গোদি মিডিয়াগুলিও বেশ ঢাক ঢোল সহকারে সকাল থেকে রাত অবধি ঢালাও প্রচার চালিয়ে যাচ্ছে, বিজেপি(BJP) একাই ৩৫০’র বেশি আসন পাবে আর এনডিএ(NDA) পাবে ৪৫০টি আসন। অন্ধভক্তরাও মেতে আছে এই সব হিসাবে। ভাবখানা তাঁদের এমনই যে, ভোটের(Loksabha Election 2024) আগেই তাঁরা ভোটে জিতে গিয়েছে। নরেন্দ্র মোদির(Narendra Modi) তৃতীয়বারের জন্য প্রধানমন্ত্রীর পদে শপথগ্রহণ শুধুমাত্র সময়ের অপেক্ষা মাত্র। বাস্তব ছবি কিন্তু এইসব কিছুই উল্টো পথের ছবি তুলে ধরছে। বিজেপি সূত্রেই জানা গিয়েছে, দেশের একটি বেসরকারি সংস্থাকে দিয়ে সমীক্ষা করিয়েছিল পদ্মশিবির। সেই সমীক্ষার রিপোর্টেই তুলে ধরা হয়েছে, দেশজুড়ে ১২০টি আসন হারাতে চলেছে বিজেপি। শুধু তাই নয়, সমীক্ষাতে এটাও বলা হয়েছে, দেশে তৈরি হওয়া INDIA জোট যদি বিজেপিকে সংঘবদ্ধ ভাবে কড়া লড়াই দিতে পারে তাহলে, সেই আসন হারার সংখ্যা ১৫০’রও বেশি হতে পারে। একই সঙ্গে জানানো হয়েছে বাংলায়(Bengal) বিজেপি উনিশের তুলনায় ১০টি আসন কম পাবে। অর্থাৎ এ রাজ্যে বিজেপির সর্বোচ্চ আসন প্রাপ্তির সম্ভাবনা মাত্র ৮। 

Advertisement

সূত্রে জানা গিয়েছে, সমীক্ষায় যে সব রাজ্যে বিজেপি আসন কমবে বলে তুলে ধরা হয়েছে তার মধ্যে বাংলা ছাড়াও আছে ডবল ইঞ্জিনের রাজ্য উত্তরপ্রদেশ, রাজস্থান, ছত্তিশগড়, অসম, মায় নরেন্দ্র মোদির গুজরাতও। ওই তালিকায় থাকছে এনডিএ শাসিত বিহার, হরিয়ানা, মহারাষ্ট্রও। তালিকায় থাকছে বিরোধী শাসিত কর্ণাটক, ঝাড়খণ্ড এবং দিল্লিও। সমীক্ষার রিপোর্ট অনুযায়ী ২৪’র ভোটে বিজেপি বিহার, কর্ণাটক ও উত্তরপ্রদেশ থেকে ১৫টি করে মোট ৪৫টি আসন হারাতে চলেছে। মহারাষ্ট্র আর বাংলা থেকে ১০টি করে মোট ২০টি আসন হারাতে চলেছে। রাজস্থান থেকে ৮টি, ঝাড়খণ্ড থেকে ৬টি, ছত্তিশগড় থেকে ৫টি, হরিয়ানা থেকেও ৫টি, অসম থেকে ৪টি, দিল্লি থেকেও ৪টি আসন হারাতে চলেছে বিজেপি। গুজরাতে তাঁরা হারতে পারে ২টি আসন। বাদবাকি দেশ থেকে তা৬রা হারাতে চলেছে আরও ২১টি আসন। সব মিলিয়ে ১২০। সমীক্ষার হিসাব সত্যি হলে বিজেপিকে শতাব্দীর সর্ববৃহৎ হারের সন্মুখীন হতে হবে এবং এক্ষেত্রে এনডিএ ১৮০টির বেশি আসন পাবে না।

Advertisement

বাংলার কী অবস্থা? বাংলার ক্ষেত্রে সাফ জানানো হয়েছে, দল মাত্র ১৩টি আসনে লড়াই করার মতো জায়গায় দাঁড়িয়ে আছে। এই ১৩টি কেন্দ্র হল – কোচবিহার, বালুরঘাট, রানাঘাট, বনগাঁ, ব্যারাকপুর, আসানসোল, বর্ধমান-দুর্গাপুর, পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, বিষ্ণুপুর, আরামবাগ, কাঁথি ও তমলুক। এর মধ্যে সর্বোচ্চ ৮টি আসনে দল জিততে পারে। এই ৮টি আসন হল – কোচবিহার, বালুরঘাট, বনগাঁ, আরামবাগ, তমলুক, কাঁথি, বিষ্ণুপুর ও পুরুলিয়া। উনিশের লোকসভা নির্বাচনে বাংলা থেকে বিজেপির জেতা আলিপুরদুয়ার, জলপাইগুড়ি, দার্জিলিং, রায়গঞ্জ, মালদা উত্তর, হুগলি, ঝাড়গ্রাম ও মেদিনীপুরকে এবারে কার্যত হারের খাতায় ঠেলে দেওয়া হয়েছে। সমীক্ষায় এটাও জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, বাম-কংগ্রেস-আইএসএফ জোট দানা না বাঁধলে বিজেপি আরও বেশি আসন হারাবে। সেক্ষেত্রে বিজেপি সর্বোচ্চ মাত্র ৫টি আসন পেতে পারে।

Advertisement
Tags :
Advertisement