For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

ধনিয়াখালিতে লকেটকে লক্ষ্য করে 'চোর চোর' স্লোগান

06:44 PM Jan 20, 2024 IST | Subrata Roy
ধনিয়াখালিতে লকেটকে লক্ষ্য করে  চোর চোর  স্লোগান
Advertisement

নিজস্ব প্রতিনিধি ,ধনিয়াখালি: হনুমান পুজো করে ফেরার পথে সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায় এর গাড়ি লক্ষ্য করে চোর ও জয় বাংলা স্লোগান দিল তৃণমূল। শনিবার হুগলি জেলার ধনিয়াখালির সাহেব হাটতলা এলাকার ঘটনা। তৃনমূল কর্মীদের দাবি, একশো দিনের টাকা চুরি করেছে ওদের নেতারা তাই চোর চোর স্লোগান তো হবেই। পাল্টা সাংসদ বলেন, রামের কথা বলতে এসেছি সেখানেও গালাগাল দিচ্ছে।শনিবার ধনিয়াখালির সাহেব হাটতলা এলাকায় দলীয় কর্মী সমর্থকদের নিয়ে হনুমান পুজো করেন সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়(Locket Chattapadhay)।‌ । পুজো করে লাড্ডু বিতরণ সেরে তার গাড়ি করে ফিরছিলেন।। সেখান থেকে কয়েক মিটার দূরেই তৃণমূল কংগ্রেসের একটি পথসভার প্রস্তুতি হচ্ছিল। সেই রাস্তা দিয়েই লকেট চট্টোপাধ্যায়ের গাড়ি যাবার সময় উপস্থিত তৃণমূল কর্মীরা সাংসদকে লক্ষ্য করে চোর চোর স্লোগান দেন।

Advertisement

পাশাপাশি মাইক নিয়ে জয়বাংলা স্লোগান দিতেও দেখা যায় তাদের। তখন গাড়ির ভিতরেই ছিলেন লকেট চট্টোপাধ্যায়।। যদিও সাংসদের গাড়ি সেখানে দাঁড়ায় নি।ঘটনা প্রসঙ্গে স্থানীয় তৃনমুল কর্মী মানিক নস্কর বলেন,এখানে পুজো করতে এসেছেন। কিন্তু এখানে এসে উল্টো পাল্টা কথা বললে হবে না। কেন বললেন না একশো দিনের টাকা , ঘরের টাকা অমিত শাহের(Amit Sha) ছেলে চুরি করে সব নিয়ে নিয়েছেন,ঐই টাকাটা পেলে আমরা দেবো। চোর স্লোগান তো দেবোই। অমিত শাহের ছেলে জয় শাহ্,শুভেন্দু অধিকারী কি ভালো ? টাকা করে নি। ২০০৯ এ তমলুকে(Tamluk) ওত টাকা কোথা থেকে খরচ করলেন ।ও চুরি করে নি। তখন তো সারদা , নারদার টাকা নিয়েছিলেন। চুরি তো উনি ও করেছিলেন।

Advertisement

ঘটনা প্রসঙ্গে পাল্টা লকেট চট্টোপাধ্যায় বলেন, মুখ্যমন্ত্রী(CM) রামের বিরুদ্ধে মিছিল করছে। এরাও রামের বিরুদ্ধে স্লোগান দিচ্ছে। এই জিনিস বাংলার মানুষ আর মেনে নেবে না। জয় বাংলা বলুক। বিভিন্ন তোলাবাজিতে তাদের নেতারা সবই জেলে আছে। সবেতে এরা যুক্ত আছে তাই অস্তিত্বের শেষ লড়াই করছে তারা। আমরা রামের কথা বলতে এসেছি আর এরা সেখানে গালি দিচ্ছে ,এটাই তাদের চরিত্র।ঘটনা প্রসঙ্গে ধনিয়াখালির বিধায়ক অসীমা পাত্র(Asima Patra) জানান , যেখানে এসেছিল সেটা এস সি এলাকা। আজকে সেখানে একশো দিনের টাকা বন্ধ, ঘরের টাকা বন্ধ। লকেট চট্টোপাধ্যায় হঠাৎ পাঁচ বছর পর চলে এলেন হনুমান চলিশা পাঠ করতে । তাহলে মানুষ তো বিক্ষোভ দেখাবেই। সে জন্য বিধায়ক কেন উত্তর দেবে।

Advertisement
Tags :
Advertisement