For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

তলব এড়ালেও ফিরতি তলবের মুখে ঋতুপর্ণা, চাপ বাড়াচ্ছে ED

বুধবার হাজিরা না দিলেও আগামি সপ্তাহে কলকাতার পাশেই থাকা সল্টলেকের CGO Complex'র ED'র কার্যালয়ে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে ঋতুপর্ণাকে।
09:24 AM Jun 06, 2024 IST | Koushik Dey Sarkar
তলব এড়ালেও ফিরতি তলবের মুখে ঋতুপর্ণা  চাপ বাড়াচ্ছে ed
Courtesy - Google
Advertisement

নিজস্ব প্রতিনিধি: হাজিরা দেওয়ার কথা ছিল বুধবার। তা তিনি দেননি। কারণ হিসাবে জানিয়েছেন, রয়েছেন তিনি মার্কিন মুলুকে(USA)। কিন্তু সেই জবাবে ভবি ভোলার নয়। তাই আগামি সপ্তাহে আবারও টলি নায়িকা ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকে(Rituparna Sengupta) ডেকে পাঠালও কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা Enforcement Directorate বা ED। আগামি সপ্তাহে তাঁকে কলকাতার(Kolkata) পাশেই থাকা সল্টলেকের CGO Complex-এ ED'র কার্যালয়ে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে। রেশন দুর্নীতির কাণ্ডেই সেই তলব বলেও জানা গিয়েছে। সূত্রে জানা গিয়েছে, বাংলার বুকে ঘটে যাওয়া রেশন দুর্নীতির ঘটনায়(Ration Distribution Scam) তদন্ত করতে নামা ED আধিকারিকদের হাতে রেশন দুর্নীতিতে গ্রেফতার হওয়া এক অভিযুক্তের সঙ্গে ঋতুপর্ণার আর্থিক লেনদেনের তথ্য এসেছে। সেখানে প্রায় কোটি টাকার লেনদেনের তথ্য রয়েছে। সেই সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই আগামী সপ্তাহে ঋতুপর্ণাকে তলব করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। যদিও আনুষ্ঠানিক ভাবে এই বিষয়ে সবিস্তারে কিছু জানায়নি ED।

Advertisement

রেশন দুর্নীতি মামলায় জিজ্ঞাসাবাদ করতে গতকালই ঋতুপর্ণাকে ডেকে পাঠিয়েছিল ED। কিন্তু ঋতু নিজেই এখন রয়েছে দেশের বাইরে। তাই হাজিরাও দিতে পারেননি। তবে তিনি বিদেশ থেকে ইমেল মারফত ED আধিকারিকদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলেছেন। এর আগেও ঋতুপর্ণাকে তলব করেছিল ED। তবে সেটা রেশন দুর্নীতির ঘটনা ছিল না। সেই তলবের কারণ ছিল অর্থলগ্নি সংস্থা রোজভ্যালির আর্থিক নয়ছয়ের মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য। সেটা ২০১৯ সালের ঘটনা। সেই সময় ED’র ডাকে সাড়া দিয়ে ঋতু হাজিরাও দিয়েছিলেন। এবারেও দিতে চান, তবে তার জন্য তাঁর দেশে ফেরা দরকার আগে। সম্ভবত আগামী সপ্তাহেই দেশে ফিরছেন তিনি। আর তারপরে পরেই তিনি হাজিরা দেবেন সল্টলেকের CGO Complex-এ। প্রসঙ্গত, রেশন দুর্নীতি মামলায় ইডির হাতে রাজ্যের প্রাক্তন খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, বনগাঁ পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান শঙ্কর আঢ্য, রেশন ব্যবসায়ী বাকিবুর রহমান-সহ শাসকদলের কয়েক জন নেতা ও তাঁদের ঘনিষ্ঠকে ইতিমধ্যেই গ্রেফতার করেছে ED।

Advertisement

Advertisement
Tags :
Advertisement