For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

ক্যানিংয়ে প্রতারকদের ফাঁদে শতাধিক মহিলা, ঋণ দেওয়ার নামে টোপ

02:38 PM Feb 08, 2024 IST | Mainak Das
ক্যানিংয়ে প্রতারকদের ফাঁদে শতাধিক মহিলা  ঋণ দেওয়ার নামে টোপ
Advertisement

নিজস্ব প্রতিনিধি : দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিংয়ে প্রতারকদের ফাঁদে পা দিলেন শতাধিক মহিলা। মহিলাদের কাছ থেকে প্রায় দশ লক্ষ টাকারও বেশি হাতিয়ে নিয়েছেন প্রতারকরা। ঋণ দেওয়ার নাম করে গৃহবধূদের কাছ থেকে লক্ষাধিক টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। এখনও পর্যন্ত এই ঘটনায় কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ।

Advertisement

পুলিশ সূত্রে খবর, এই প্রতারণা চক্রের সঙ্গে তিন জন মহিলা যুক্ত। পনেরো দিন আগে ক্যানিংয়ের তালদি, মিঠাখালি, বেলেগাছি সহ বিভিন্ন গ্রামে হাজির হন তিন জন অপরিচিত মহিলা। গ্রামে গ্রামে গৃহবধূদের স্বনির্ভর করার জন্য ঋণ দেওয়ার প্রলোভোন দেখান তারা। সেই প্রলোভোনে পা দেন গ্রামের মহিলারা। অনেক মহিলাদের কাছ থেকে এরজন্য নথিও সংগ্রহ করা হয়।

Advertisement

এরপরই প্রতারক তিন জন গ্রামের মহিলাদের বোঝান, লোন দেওয়ার আগে তাদের বিমা করতে হবে। বিমার ধরণ সম্পর্কেও ওই মহিলাদের জানানো হয়। কারোর কাছ থেকে পঞ্চাশ হাজার টাকা লোনের জন্য ২৬৫০ টাকা, কারোর কাছ থেকে ৬০ হাজার টাকা লোনের জন্য ২৯৫০ টাকা আবার কারোর কাছ থেকে ৮০ হাজার টাকা লোনের জন্য ৩২৫০ টাকা নেওয়া হয়। গ্রামের প্রায় শতাধিক মহিলা এই প্রতারণায় পা দেয়। সব মিলিয়ে প্রায় ১০ লক্ষ টাকার বেশি হাতিয়ে নেন প্রতারকরা।

ইতিমধ্যে ক্যানিং থানায় প্রতারকদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। ভুক্তভোগী গ্রামেরই এক মহিলা জানান, ‘আমাদের টাকার খুব দরকার ছিল। আসলে মিষ্টি কথায় আমাদের ভুল বোঝানো হয়েছিল। আমাদের পর কেউ যেন প্রতারকদের ফাঁদে পা না দেন, সেজন্যই পুলিশের কাছে অভিযোগ জানানো হয়েছে। আশা করব প্রতারকরা ধরা পড়বে।‘

Advertisement
Tags :
Advertisement