For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

ব্রিটেনে বৈদ্যুতিক গাড়ি বিক্রিতে ভাঁটার জন্য দায়ী মিস্টার বিন!

আমি বৈদ্যুতিক যানবাহন পছন্দ করি। আমিও এগুলি ব্যবহার করতাম। কিন্তু পরে এই গাড়ি ব্যবহারে ক্রমশ প্রতারিত বোধ করেছি।
08:17 PM Feb 07, 2024 IST | Sushmitaa
ব্রিটেনে বৈদ্যুতিক গাড়ি বিক্রিতে ভাঁটার জন্য দায়ী মিস্টার বিন
Advertisement

নিজস্ব প্রতিনিধি: বর্তমানে গোটা বিশ্বে যেখানে ইলেকট্রিক গাড়ির চাহিদা এত পরিমাণে বাড়ছে, সেখানে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে নাকি ইলেকট্রিক গাড়ি বন্ধ করার তোড়জোড় শুরু হয়েছে। তবে এর দায় পড়েছে 'মিস্টার বিন'-খ্যাত অভিনেতা রোয়ান অ্যাটকিনসনের (Rowan Atkinson) উপর। কিন্তু কেন? আসলে তারকাদের পোশাক-আশাক থেকে শুরু করে তাঁদের স্টাইল সবটাই অনুকরণ করেন ভক্তরা বা সাধারণ মানুষরা। তাই যেকোনও পণ্যের বিশ্বাসযোগ্যতাস্বরূপ তারকাদের বিজ্ঞাপনের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর বানানো হয়, যাতে তাঁদের মুখ দেখে পণ্যের বিশ্বাস পান সাধারণ মানুষ।

Advertisement

কিন্তু সেখানে যদি তারকাদের নিজেরই কোনও বিশ্বাস না থাকে, তাহলে তো ভক্তদেরও কোনও বিশ্বাস থাকবে না। আসলে সম্প্রতি যুক্তরাজ্যের হাউস অফ লর্ডসের একটি প্রতিবেদনে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বৈদ্যুতিক গাড়ির দুর্বল বিক্রির জন্যে অভিনেতাকে দায়ী করা হয়েছে। স্কাই নিউজের মতে, মঙ্গলবার হাউসের পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন কমিটির বৈঠকে অভিনেতার নাম পরীক্ষা করা হয়েছিল। সভায়, থিঙ্ক ট্যাঙ্ক গ্রিন অ্যালায়েন্স ২০৩৫ সালের মধ্যে পেট্রোল এবং ডিজেল গাড়িগুলির বন্ধ করার বিষয়ে অভিনেতার একটি মতামত দায়ী করেছে। যা কিনা অত্যন্ত ক্ষতিকারক বলেও দাবি করেছে। আউটলেট অনুসারে, মিঃ অ্যাটকিনসন ২০২৩ সালের জুনে এই মন্তব্যটি করেছিলেন। একটি সংবাদপত্রে তিনি বৈদ্যুতিক যানবাহনের প্রতি অনীহা প্রকাশ করে লিখেছিলেন যে, "আমি বৈদ্যুতিক যানবাহন পছন্দ করি। আমিও এগুলি ব্যবহার করতাম। কিন্তু পরে এই গাড়ি ব্যবহারে ক্রমশ প্রতারিত বোধ করেছি। কারণ এই ইলেকট্রিক ভিহাইকেলগুলি প্রাণহীন।"

Advertisement

আসলে তিনি লিথিয়াম-আয়ন ব্যাটারি ব্যবহারের তীব্র সমালোচনা করেছিলেন। অভিনেতার এই নিবন্ধটি ভাইরাল হয়ে যেতেই EVs-এর উকিলদের কাছ থেকে অভিনেতার ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছেন। দ্য টেলিগ্রাফ কার্বন ব্রিফ ওয়েবসাইটের সাইমন ইভান্সকে উদ্ধৃত করে বলেছে, "মিস্টার অ্যাটকিনসনের সবচেয়ে বড় ভুল হল, যেখানে বৈদ্যুতিক যানবাহনগুলি এখন পেট্রোল-ডিজেলের গাড়ির তুলনায় উল্লেখযোগ্য বৈশ্বিক পরিবেশগত সুবিধা প্রদান করছে তা স্বীকার করতে ব্যর্থ হওয়া।" আসলে বর্তমানে বৈদ্যুতিক গাড়িগুলি পেট্রোল-ডিজেলের গাড়ি তুলনায় পরিবেশকে বেশি সচেতন রাখে। কিন্তু তারই সমালোচনা করেছেন অভিনেতা। আর এতেই তীব্র আপত্তি ব্রিটেনের, সরকারের মতে, ব্রিটেনে বৈদ্যুতিক গাড়ি বিক্রি বন্ধ হয়ে যাওয়ার প্রধান কারণ মিস্টার বিন-খ্যাত অভিনেতার কটুক্তি। তবে এই বিষয়ে এখনও পর্যন্ত কোনও প্রতিক্রিয়া জানাননি অভিনেতা রোয়ান অ্যাটকিনসন।

Advertisement
Tags :
Advertisement