For the best experience, open
https://m.eimuhurte.com
on your mobile browser.
OthersWeb Stories খেলা ছবিঘরতৃণমূলে ফিরলেন অর্জুন সিংবাংলাদেশপ্রযুক্তি-বাণিজ্যদেশকলকাতাকৃষিকাজ বিনোদন শিক্ষা - কর্মসংস্থান শারদোৎসব লাইফস্টাইলরাশিফলরান্নাবান্না রাজ্য বিবিধ আন্তর্জাতিককরোনাএকুশে জুলাইআলোকপাতঅন্য খবর
Advertisement

আগামিকাল মুখ্যমন্ত্রীর হাত ধরেই উদ্বোধন শ্যাম স্টিলের ইস্পাত কারখানার

মুখ্যমন্ত্রীর জঙ্গলমহল সফরের মাঝেই পুরুলিয়ার জঙ্গল সুন্দরী শিল্পনগরীতে তাঁর হাত ধরে উদ্বোধন হতে চলেছে শ্যাম স্টিলের নয়া ইস্পাত কারখানার।
01:58 PM Feb 26, 2024 IST | Koushik Dey Sarkar
আগামিকাল মুখ্যমন্ত্রীর হাত ধরেই উদ্বোধন শ্যাম স্টিলের ইস্পাত কারখানার
Courtesy - Facebook and Twitter
Advertisement

নিজস্ব প্রতিনিধি: জঙ্গলমহল(Jungalmahal) সফরে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়(Mamata Banerjee)। সফরে আগামিকাল তিনি সভা কবেন পুরুলিয়ার(Purulia) বুকে। সেই সভা থেকেই তিনি জেলার রঘুনাথপুরের(Raghunathpur) জঙ্গল সুন্দরী শিল্পনগরীতে(Jungal Sundari Shilpa Nagari) গড়ে ওঠা শ্যাম স্টিলের(Syam Steel) ইস্পাত কারখানার উদ্বোধন করবেন। ১৫০০ কোটি টাকা ব্যয়ে ৬০০ একর জমির ওপর গড়ে ওঠা এই কারখানায় এবার Phase 1’র উদ্বোধন হচ্ছে। আগামী দিনে এই কারখানার আরও ৩টি ফেস হওয়ার কথা। সব মিলিয়ে এই কারখানার জন্য জঙ্গল সুন্দরী শিল্পনগরী মোট ৪৫০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করা হচ্ছে। কারখানাটি পূর্ণ মাত্রায় চালু হয়ে গেলে সেখানে ৮ হাজার মানুষের প্রত্যক্ষ এবং প্রায় ২০ হাজার মানুষের পরোক্ষ ভাবে কর্মসংযথান হবে। রাজ্যে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার পরেই রঘুনাথপুরে ‘শিল্পনগরী’ তৈরির ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পুরুলিয়ায় এলেই মুখ্যমন্ত্রীর বক্তব্যে নিয়মিত উঠে এসেছে রঘুনাথপুরের শিল্পায়ন ও শিল্পনগরী তৈরির কথা। এবারে তাঁর পুরুলিয়া সফরের মাঝেই উদ্বোধন হতে চলেছে সেই শিল্পনগরীর অন্যতম বৃহৎ ইস্পাত কারখানার।

Advertisement

বাংলার অন্যতম প্রান্তিক জেলা পুরুলিয়ার বুকে রঘুনাথপুরে ‘জঙ্গল সুন্দরী কর্মনগরী’ নামের শিল্পপার্ক গড়ে তোলার কথা ঘোষণা করার সময় রাজ্য বিধানসভায় মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, ‘রঘুনাথপুরে রাজ্য শিল্প উন্নয়ন নিগমের হাতে থাকা ২,৪৮৩ একর জমির ওপরে জঙ্গল সুন্দরী কর্মনগরী তৈরি করব আমরা। এই প্রকল্প গড়ে ওঠার ফলে প্রচুর কর্মসংস্থান হবে। ডানকুনি থেকে বর্ধমান-দুর্গাপুর হয়ে আসানসোল এবং বড়জোড়া-বাঁকুড়া-রঘুনাথপুর পর্যন্ত যে বিশেষ শিল্প করিডর তৈরি হচ্ছে, তাতে রাজ্যের প্রথম শিল্পনগরী হতে যাচ্ছে রঘুনাথপুরে। নতুন শিল্পনগরী তৈরি হলে প্রচুর কর্মসংস্থান হবে। আগামী দিনে ভোলবদলে যাবে রঘুনাথপুর মহকুমা এলাকার।’ মুখ্যমন্ত্রীর সেই ঘোষণা ধীরে ধীরে বাস্তবায়িত হতে শুরু করেছে। শিল্পপার্কের শিলান্যাসের পর থেকে এখনও পর্যন্ত মোট ৮ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছে ৩টি বেসরকারি শিল্পসংস্থা। তবে শুধু এই ৩টি শিল্পসংস্থাই নয়, আরও বেশ কিছু নামীদামী শিল্পসংস্থা সেখানে বিনিয়োগের আশ্বাস দিয়েছে। সেই হিসাবে সেখানে প্রায় ৭২ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ হওয়ার কথা রয়েছে। কার্যত পুরুলিয়া জেলার গোটা রঘুনাথপুর মহকুমাজুড়ে হবে জঙ্গল সুন্দরী কর্মনগরী।

Advertisement

মুখ্যমন্ত্রীর হার ধরে আগামীকাল শ্যাম স্টিলের ইস্পাত কারখানার উদ্বোধন হতে চলেছে এই খবরে উচ্ছ্বসিত রঘুনাথপুরের তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা। শিল্পনগরী গড়ে তোলার জন্য রাজ্য সরকারকে যেমন সেখানে জমি অধিগ্রহণের পথে হাঁটতে হয়নি তেমনি তা তৈরির জন্য রাস্তা, জল, বিদ্যুতের মতো পরিকাঠামো তৈরির ক্ষেত্রে খরচ করেছে রাজ্য সরকারই। ইতিমধ্যেই জঙ্গল সুন্দরী শিল্পনগরীতে প্রায় ১০ হাজার মানুষ ছোট-বড় নানা শিল্প কারখানায় কাজ করছেন। শ্যাম স্টিলের কারখানা পূর্ণ দলে চালু হয়ে গেলে সেখানে কর্মরত মানুষের সংখ্যা দ্বিগুণ হয়ে যাবে। লোকসভা নির্বাচনের আগে এই কারখানার উদ্বোধন যে বিজেপি অপেক্ষা তৃণমূলকেই বেশি করে ডিভিডেন্ড এনে দিতে চলেছে সেটা আর আলাদা করে বলার অপেক্ষা রাখে না। কার্যত রাজ্য সরকারের নানা আর্থসামাজিক প্রকল্প এবং জমি অধিগ্রহণহীন শিল্পনীতি পুরুলিয়ার অর্থনীতিকেই বদলে দিচ্ছে ধীরে ধীরে। ২০১৮ সালের পঞ্চায়েত নির্বাচন এবং ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনের সময় পুরুলিয়া জেলাজুড়ে পদ্মঝড় বয়ে গেলেও ২০২১ সালের বিধানসভা নির্বাচন এবং ২০২৩ সালের পঞ্চায়েত নির্বাচনে সেই পদ্মঝড় বেশ ভালই ধাক্কা খেয়েছে। দেখার বিষয় ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে পুরুলিয়া লোকসভা কেন্দ্র তৃণমূল বিজেপির থেকে ছিনিয়ে নিতে পারে কিনা।

Advertisement
Tags :
Advertisement